• শুক্রবার   ২১ জানুয়ারি ২০২২ ||

  • মাঘ ৮ ১৪২৮

  • || ১৭ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

শত বছর বাঁচতে চাইলে এই ৫টি খাবার তালিকায় রাখুন

দৈনিক বগুড়া

প্রকাশিত: ১৪ নভেম্বর ২০২১  

কথায় আছে মরিতে চাহি না আমি সুন্দর ভুবনে, মানুষের মাঝে আমি বাঁচিবার চাই। জগতে অনন্তকাল ধরে মানুষ বেঁচে থাকতে চায়। আপনি কত বছর বাঁচবেন তা অনেকাংশে নির্ভর করে আপনার খাওয়া-দাওয়া ও জীবনযাপনের ওপর। সুপরিচিত বিজ্ঞানী এবং স্বাস্থ্য ও পুষ্টি বিশেষজ্ঞ ডাঃ জেমস ডি নিকোলান্তোনিও সম্প্রতি পাঁচটি খাবারের একটি তালিকা করে  বলেছেন, এই খাবারগুলো শতবর্ষ বাঁচতে সাহায্য করবে। চলুন খাবারের তালিকা জেনে নেওয়া যাক।

মধু:

আপনি জেনে অবাক হবেন যে মধুতে এমন অনেক উপাদান থাকে  যা ক্যান্সার ও হৃদরোগের সম্ভাবনা কমাতে পারে। এ বিষয়ে ন্যাশনাল লাইব্রেরি অফ হেলথের একটি গবেষণা প্রকাশ হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে মধু খাওয়ার ফলে  ব্রেস্ট ক্যান্সার, লিভার এবং  কোলেক্টরাল ক্যান্সারের রোগীদের কী প্রভাব হয় তা পরীক্ষা করে দেখা হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে মধু টিউমার বা ক্যান্সার সেলের জন্য সাইটোটিক্সিক হিসেবে কাজ করে।

ছাগলের দুধ:

সারা বিশ্বের মানুষের মৃত্যুর অন্যতম কারণ ক্যান্সার। ফার্মেন্টেড গোট মিল্কে প্রোবায়োটিকস আছে যা ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায়। বেশি কয়েকটি গবেষণায় এই বিষয়টি প্রমাণিত হয়েছে। জার্নাল অফ মেডিসিনাল ফুডে প্রকাশিত গবেষণায় দেখা যায়, ছাগলের দুধে ব্রেস্ট ক্যান্সারের সম্ভাবনা ৫৬ শতংশ কমে।

ডালিম:

ডালিমে ভিটামিন এ, সি, ই  প্রচুর পরিমাণে রয়েছে যা দীর্ঘদিন বেঁচে থাকতে সহায়তা করে । এছাড়াও, এই ফলের অ্যান্টি-ভাইরাল এবং অ্যান্টি-টিউমার বৈশিষ্ট্য রয়েছে, যা দীর্ঘ জীবনযাপনের ক্ষেত্রে বেশ কার্যকর হিসেবে প্রমাণিত।

‘নেচার মেডিসিন’ জার্নালে প্রকাশিত একটি গবেষণায় জানা গেছে, ডালিমের মধ্যে মাইটোকন্ড্রিয়া নামক একটি অণু থাকে, যার ক্ষয় হলে পেশী দুর্বল হয়ে যেতে পারে। সমীক্ষায় আরও প্রকাশ করা হয়েছে যে, অকার্যকর মাইটোকন্ড্রিয়া তৈরি হওয়ার কারণে পারকিনসন রোগের মতো বার্ধক্যজনিত অন্যান্য রোগ দেখা দেয়। এজন্য দীর্ঘ জীবন বাঁচতে খাদ্য তালিকায় অবশ্যই ডালিম রাখতে হবে।

ফার্মেন্টেড ফুড:

ফার্মেন্টেড ফুড শরীরের মেটাবলিক রেট পরিবর্তন করতে পারে। সেই সাথে খাবার হজম হওয়ার প্রক্রিয়ায়ও পরিবর্তন আনতে পারে। ফার্মেন্টেড ফুডে প্রোয়োবায়োটিকস, অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, অ্যান্টি মাইক্রোবিয়াল থাকে যা শরীরকে দীর্ঘদিন সুস্থ রাখতে পারে।

কাঁচা কলা:

আপনি জেনে অবাক হবেন যে, কাঁচা কলায় যে প্রিবায়োটিক রয়েছে তার ফলে পেটে উপকারী ব্যাকটেরিয়ার জন্ম হয় যা পরবর্তীতে উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারে। অনেক গবেষণায় উঠে ব এসেছে যে কাঁচা কলা খেলে বৃক্কের ক্যান্সারের সম্ভবনা ৫০ শতাংশ হ্রাস পায়।

সূত্র: দ্যা টাইমস অব ইন্ডিয়া

দৈনিক বগুড়া
দৈনিক বগুড়া