শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১

মেহেদির রং গাঢ় করার কৌশল

মেহেদির রং গাঢ় করার কৌশল

সংগৃহীত

রাত পোহালেই ঈদ। উৎসব এলেই মেহেদিতে হাত রাঙানোর ধুম পড়ে। মেহেদি পরতে ভালোবাসে না এমন নারী খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। কেউ পার্লারে, কেউ অভিজ্ঞ কারও কাছে, আবার কেউ নিজের হাতে নিজেই দিয়ে থাকেন। কিন্তু এত কষ্ট করে মেহেদি দেওয়ার পর যদি রং টাই ঠিক মত না হয় তাহলে পুরো আনন্দটাই মাটি হয়ে যায়।

জেনে নিন মেহেদির রং গাঢ় করার কৌশল-

১. মেহেদি লাগানোর পরে যখন মেহেদি একটু একটু করে শুকাতে শুরু করবে তখন একটি পাত্রে সামান্য লেবুর রস আর চিনি মিশিয়ে তুলার বল দিয়ে রস টা নিয়ে হাতে মিশ্রণটি লাগান। মেহেদির উপর ঘষাঘষি করবেন না। আলতো করে শুকিয়ে যাওয়া মেহেদির একটু উপর থেকে তুলার বল চিপে ফোটা ফোটা করে লেবু আর চিনির মিশ্রণটি পুরো হাতে লাগাবেন। লেবুর রস মেহেদির রংটা পুরোপুরি মেহেদির পেস্ট থেকে বের করতে সাহায্য করে আর চিনি সেই রং আর মেহেদি অনেকক্ষণ হাতে আটকে রাখতে সাহায্য করে। 

২. রাতে ঘুমাতে যাওয়ার ২/৩ ঘণ্টা আগে লাগান, এবং সারা রাত হাতে মেহেদি রেখে দিন। মেহেদি শুকিয়ে গেলেও হাত ধুবেন না। আপনা আপনি কিছু পড়ে যাবে আর বাকি গুলো হাতে রেখেই ঘুমাতে পারেন অথবা হাত ঘষে মেহেদি ফেলে দিতে পারেন। অন্তত ৮ ঘণ্টা পানি থেকে হাত দূরে রাখুন। যত দেরিতে পানি লাগাবেন হাতে তত বেশি রং গাঢ় হবে।

৩. মেহেদি হালকা শুকানোর পর গাঢ় রং পেতে ক্লোভ স্টিম নিতে পারেন। এজন্য একটি পাত্রে পানির সঙ্গে কয়েকটি লবঙ্গ ফুটিয়ে নিন। তারপর ওই ফুটন্ত পানির বাষ্প হাতে লাগালেই মেহেদির রং গাঢ় পাবেন।

৪. সরিষার তেল ব্যবহার করুন মেহেদির স্থানে। তারপর একটি ব্যান্ডেজ দিয়ে মেহেদির স্থান ঢেকে ঘুমিয়ে পড়ুন রাতে। 

৫. লবঙ্গ কাজে লাগাতে পারেন মেহেদির রং গাঢ় করার ক্ষেত্রে। প্রথমে একটি লোহার কড়াই চুলায় বসিয়ে চুলা জ্বালিয়ে দিন। এরপর তাতে কয়েকটি লবঙ্গ দিন। কড়াই থেকে ধোঁয়া বের হলে তার ওপর আপনার হাত দু’টি ধরে রাখুন। এতে মেহেদির রং সহজেই গাঢ় হবে। তবে সাবধান থাকুন, গরম কড়াই যেন হাতে না লাগে।

সূত্র: ডেইলি বাংলাদেশ

সর্বশেষ: