• শুক্রবার   ২১ জানুয়ারি ২০২২ ||

  • মাঘ ৮ ১৪২৮

  • || ১৭ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

জাতির যেকোনো প্রয়োজনে আওয়ামী লীগ পাশে আছে: জাহাঙ্গীর কবির নানক

দৈনিক বগুড়া

প্রকাশিত: ৩ জুলাই ২০২১  

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেছেন, জাতির যেকোনো প্রয়োজনে এবং গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালনে একমাত্র আওয়ামী লীগ পাশে আছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার পরিচালনায় সব স্তর, সব অঙ্গ প্রতিষ্ঠানসহ একসঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে।

বুধবার ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলটির ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ-কমিটি আয়োজিত করোনা সংক্রমিত সীমান্তবর্তী জেলা-উপজেলায় সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার পরিচালনায় দ্বান্দ্বিকতার কোনো সুযোগ নাই। এখানে সাংঘর্ষিক কোনো বিষয় নেই। গত বছরের মার্চ থেকে সারাবিশ্ব যখন করোনার প্রাদুর্ভাবেমুখ থুবড়ে পড়েছিল, তখন বাংলাদেশ তার থেকে বিচ্ছিন্ন ছিল না। সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশে জীবন এবং জীবিকা উভয়কে একই সঙ্গে পরিচালনা এবং সঠিক ভূমিকা পালন করে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। আজকে বাংলাদেশে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ চলছে। এ দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রাক্কালে আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) থেকে দেশ আবারো একটি কঠোর লকডাইন শুরু হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, গত বছরের মধ্য মার্চ থেকে আওয়ামী লীগ দলগতভাবে এবং দলের এমপিরা চুপ করে বসে থাকেননি। এ দলের জাতীয় নেতারা করোনা মোকাবেলায় ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন। ঝাঁপিয়ে পড়ার কারণে দলের অনেক সিনিয়র নেতাকর্মীকে আমাদের হারাতে হয়েছে।

আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, আওয়ামী লীগ অন্যান্য দলের মতো ঘরে বসে থাকেনি। শেখ হাসিনার নির্দেশে মানুষকে সাহায্য-সহযোগিতা করার জন্য আওয়ামী লীগের জাতীয় নেতারা সবাই ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। লকডাউনের সময় মানুষের বাড়ি বাড়ি খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিয়েছে। যারা নিম্ব মধ্যবিত্ত, যারা মানুষের কাছে চাইতে পারে না, রাতের অন্ধকারে গিয়ে তাদের কাছে খাবার পৌঁছে দিয়েছে। এ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, কৃষকলীগ, ছাত্রলীগসহ সবাই জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করে গেছে। এ দল একমাত্র জাতির যেকোনো প্রয়োজনে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করে।

আওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের লকডাউনে মানবতার সেবায় পাশে থাকার আহ্বান জানিয়ে জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) থেকে যে লকডাউনে সেই লকডাউনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের মানুষের পাশে থাকতে হবে, অসহায় মানুষের পাশে গিয়ে দাঁড়াতে হবে এবং যারা মৃত্যুবরণ করবে, তাদের দাফন-কাফনের গুরু দায়িত্ব পালন করতে হবে। মানুষের পাশে থেকে মানুষকে বেশি বেশি করে মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করতে হবে। 

তিনি আরো বলেন, রাজনৈতিক নেতৃত্ব, রাজনৈতিক দল ও সরকারের সব প্রতিষ্ঠানগুলো দিয়েই সরকার পরিচালনা করতে হয়। গত ১২ বছর ধরে সেই গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বটি আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে সফলভাবে পালন করা হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি যুক্ত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

জাহাঙ্গীর কবির নানকের সভাপতিত্বে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, এস এম কামাল হোসেন, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক আব্দুস সবুর, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা, শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক সামছুন্নাহার চাঁপা, কেন্দ্রীয় কার্যকরী সদস্য সৈয়দ আবদুল আউয়াল শামীমসহ ত্রাণ উপ-কমিটির সদস্যরা।

দৈনিক বগুড়া
দৈনিক বগুড়া