শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ভারতের উড়িষ্যায় পুলিশের গুলিতে আহত মন্ত্রীর মৃত্যু

ভারতের উড়িষ্যায় পুলিশের গুলিতে আহত মন্ত্রীর মৃত্যু

ভারতের উড়িষ্যায় পুলিশের গুলিতে আহত রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্যমন্ত্রী নব কিশোর দাশ মারা গেছেন। রোববার (২৯ জানুয়ারি) রাজ্যের ঝারসুগুন্ডা জেলার ব্রজরজনগর এলাকায় তিনি গুলিবিদ্ধ হন। আহত মন্ত্রীকে উদ্ধার করে আকাশপথে ভুবনেশ্বরে অ্যাপোলো হাসপাতালে আনা হয়। সেখানে তার অস্ত্রোপচারও হয়। তবে শেষ পর্যন্ত মন্ত্রীকে বাঁচানো যায়নি। সেখানেই মৃত্যু হয় তার।

মন্ত্রীর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে অ্যাপোলো হাসপাতাল এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, মন্ত্রীকে আইসিইউতে রেখে হৃদযন্ত্র সচল করতে চিকিৎসা দেওয়া হয়। কিন্তু সব চেষ্টা সত্ত্বেও তার জ্ঞান ফেরেনি এবং তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

এর আগে উড়িষ্যায় একটি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দিতে যাওয়ার পথে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন নব কিশোর দাশ। খুব কাছ থেকে তার বুকে দু’বার গুলি করেন পুলিশের এক সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই)। এ ঘটনায় গুরুতর আহত অবস্থায় মন্ত্রীকে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় এবং আটক করা হয় অভিযুক্ত এএসআই’কে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির খবরে জানা যায়, রোববার (২৯ জানুয়ারি) স্থানীয় সময় দুপুর ১টার দিকে ঝাড়সুগুদা জেলার ব্রজরাজনগরের কাছে গান্ধী চক এলাকায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী কিশোরের ওপর এ হামলার ঘটনা ঘটে। পরে তাকে হেলিকপ্টারযোগে ভুবনেশ্বর নিয়ে যাওয়া হয়।

ব্রজরাজনগর মহকুমা পুলিশ কর্মকর্তা গুপ্তেশ্বর ভোই সাংবাদিকদের বলেন, এএসআই গোপাল দাশ মন্ত্রীকে লক্ষ্য করে গুলি চালান। সঙ্গে সঙ্গে গোপালকে আটক করেন স্থানীয়রা। পরে তাকে হেফাজতে নেয় পুলিশ।

তবে হামলার উদ্দেশ্য এখনো জানা যায়নি। প্রত্যক্ষদর্শীরা দাবি করেছেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী তার গাড়ি থেকে বেরিয়ে আসার পরপরই তাকে গুলি করা হয়। বিভিন্ন মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা যায়, কিশোর দাশের বুক থেকে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। তাকে তোলার চেষ্টা করছেন কয়েকজন। সম্ভবত অচেতন হয়ে পড়া মন্ত্রীকে তুলে গাড়ির সামনের সিটে বসানোর চেষ্টা করছেন তারা।

জানা যায়, এদিন একটি সরকারি অভিযোগকেন্দ্র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন নব কিশোর দাশ। অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছালে তাকে স্বাগত জানাতে ভিড় করে লোকজন। এর মধ্যেই হঠাৎ বিকট শব্দ শোনা যায়। এক প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, মন্ত্রীকে খুব কাছ থেকে গুলি করার পর এক পুলিশ সদস্যকে পালাতে দেখি আমরা।

উড়িষ্যার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক এ হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন এবং অপরাধ শাখাকে বিস্তারিত তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। ঘটনার পর শহরে টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে। কিশোর দাশের সমর্থকরা ‘নিরাপত্তা ত্রুটি’ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। কেউ কেউ দাবি করেছেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে নিশানা বানানোর পেছনে গভীর ষড়যন্ত্র রয়েছে।

দৈনিক বগুড়া

সর্বশেষ: