রোববার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১

কেবল পিৎজা খেতে বিদেশে

কেবল পিৎজা খেতে বিদেশে

সংগৃহীত

তরুণ প্রজন্মের কাছে পিৎজা বেশ জনপ্রিয় একটি খাবার। প্রায়ই বিভিন্ন ব্র্যান্ডের পিৎজা খেতে বন্ধুরা এ দোকান, ও দোকানে ঢুঁ মারেন। অনেকে আবার বিভিন্ন দেশে বেড়াতে গিয়ে সেখানকার পিৎজার স্বাদ নেন। তাই বলে শুধু পিৎজা খেতে কেউ এক দিনের ছুটি নিয়ে অন্য দেশে চলে গেছেন, তা কমই শোনা গেছে। গত ২৪ এপ্রিল এমন ঘটনাই ঘটেছে।

যুক্তরাজ্যের লিভারপুল থেকে মোরহান বোল্ড (২৭) ও জেস উডার (২৬) কর্মস্থল থেকে এক দিনের ছুটি নিয়ে উড়ে যান পিৎজার দেশ ইতালিতে। ঠিক সময়ে ফিরে এসে পরের দিন আবার কাজে যোগ দিয়েছেন তাঁরা। ম্যানচেস্টার ইভনিং নিউজ–এর খবরে বলা হয়, দুই বন্ধু এক দিনের ভ্রমণের পরিকল্পনা করেন। তাঁরা ২৪ এপ্রিল সকাল ৬টার ফ্লাইট নেন, আবার সন্ধ্যা ৬টায় ফিরে আসেন। দিনভর তাঁরা সেখানে কেনাকাটা করেছেন, ঘুরে বেড়িয়েছেন, পিৎজা খেয়েছেন।

এক দিনের এই বিদেশভ্রমণে তাঁদের খরচ হয়েছে ১৭০ পাউন্ড, বাংলাদেশি টাকায় যা ২৩ হাজার ৩১৮ টাকা। এর মধ্যে রয়েছে উড়োজাহাজের ভাড়া, এয়ারপোর্ট পার্কিং, খাবার ও বিভিন্ন ধরনের কর্মকাণ্ড।

মোরহান বোল্ড বলেন, ‘লিভারপুল থেকে লন্ডনে যাওয়ার চেয়ে আমাদের জন্য ইতালি যাওয়া সাশ্রয়ী ছিল। কেননা, লন্ডন ইউস্টনে যাওয়া ও সেখান থেকে আসা বাবদ খরচ হবে প্রায় ১০০ পাউন্ড। এটি কিন্তু খাবার ও পানীয় ছাড়াই। আর এক দিনের এই সফর খুবই সহজ। এর জন্য ব্যাগ গোছাতে হয় না। সোজা সিকিউরিটি হয়ে উড়োজাহাজে। আমি যদিও এক দিন ছুটি নিয়েছি, পরের দিন যথাসময়ে কাজে যোগ দিয়েছি।’

এই দুই নারী লিভারপুল থেকে ম্যানচেস্টার বিমানবন্দরে গাড়ি চালিয়ে আসেন। সেখানেই গাড়ি পার্ক করে উড়াল দেন।

বোল্ড ও উডার ইতালির বিখ্যাত হেলানো টাওয়ারের সামনে ছবি তুলেছেন। এবং গুগল ম্যাপ ব্যবহার করে কোথায় ভালো পিৎজা পাওয়া যায়, তা খুঁজে বের করেন।

সূত্র: প্রথম আলো

সর্বশেষ: