মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

আরেকজন নিগারের অপেক্ষায় বাংলাদেশ

আরেকজন নিগারের অপেক্ষায় বাংলাদেশ

সংগৃহীত

বাংলাদেশের হয়ে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ রান ও সর্বোচ্চ ফিফটি তাঁর। এ সংস্করণে যে দুজনের সেঞ্চুরি আছে, নিগার সুলতানা তাঁদের একজন। এ বছর এখন পর্যন্ত ৫ ম্যাচে বাংলাদেশ নারী দলের অধিনায়কের রানই সর্বোচ্চ ১৫৩। আর কোনো ব্যাটার এ ৫ ম্যাচে ১০০ রানও ছুঁতে পারেননি। 

ভারতের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচেও নিগার লড়াইটা একাই করেছিলেন। গত ম্যাচে ব্যর্থ হলেও দল যে তাঁর ওপর অনেকটাই নির্ভরশীল, সেটির ব্যাখ্যায় এর চেয়ে বেশি কিছু বলার প্রয়োজন আছে বলে মনে হয় না।  

নারী ক্রিকেটে দলীয় সাফল্য পেতে বাংলাদেশ যে এমন ব্যক্তিগত পারফরম্যান্সের ওপরই নির্ভর করে, সেটি আজ সরাসরিই বলেছেন দলের ব্যাটিং কোচ নাসিরউদ্দিন ফারুক। বলেছেন, বাংলাদেশের নারী ক্রিকেট আরেকজন নিগারের অপেক্ষায় থাকার কথাও।

ভারতের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে দলের ১০১ রানের ৫১ রানই করেছিলেন নিগার। পরের ম্যাচে সে ভূমিকাটা নেন মুর্শিদা খাতুন, ওপেনিংয়ে নেমে ১৯তম ওভারে আউট হওয়ার আগে করেন ৪৬ রান। নিগারের পর সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের ব্যাটিং কার্যত মুর্শিদার ওপরই নির্ভর করছে। সর্বশেষ দুই বছরে যে ৫টি অর্ধশতক, এর ৪টিই নিগারের, অন্যটি মুর্শিদার।

দলের ব্যাটিং নিগারের ওপরই বেশি নির্ভরশীল কি না, এমন প্রশ্নের জবাবে নাসিরউদ্দিন বললেন, ‘(ক্রিকেট) দলীয় খেলা, তা নিয়ে একমত। কিন্তু মেয়েদের ক্রিকেটে নয়। অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড ছাড়া বাকিরা এক-দুজনের ওপরই নির্ভর করে। আমরা এখন জ্যোতির (নিগারের) ওপর নির্ভর করছি। তবে এ রকম আর দু-একজন বের করতে পারলে ভবিষ্যতে আমাদের দল আরও ভালো অবস্থানে যাবে।’

অবশ্য সর্বশেষ ম্যাচে অন্যদের পারফরম্যান্সও আশাবাদী করছে ব্যাটিং কোচকে, ‘একটা ইতিবাচক দিক হচ্ছে, আমরা সাধারণত জ্যোতির ওপর নির্ভর করি। তবে সে ছাড়াও অন্যরা গতকাল রান করেছে। সবারই সামর্থ্য আছে। সময় দিলে বাকিরাও মানিয়ে নেবে। দিলারা (আক্তার), সোবহানা (মোস্তারি) ভালো শুরু করেছে। ছোট ছোট জিনিসগুলো যদি বড় হয়, সমস্যাগুলো মিটে যাবে।’

প্রথম ২ ম্যাচ হেরে সিরিজ হারের দ্বারপ্রান্তে এখন বাংলাদেশ নারী দল। আগামীকাল সিলেটে সিরিজের তৃতীয় টি-টোয়েন্টির আগে অবশ্য ব্যাটিং কোচকে আশা জোগাচ্ছে আরেকটি বিষয়ও, ‘শেষ এক বছরে যে সিরিজগুলো খেলেছি, কঠিন উইকেটে খেলেছি। এখন উইকেট যেহেতু নিষ্প্রাণ, মানিয়ে নিতে একটু সমস্যা হচ্ছে। তবে দিন দিন মেয়েরা ভালো করছে। প্রথম ম্যাচে ১০০-এর মতো করেছিলাম, সর্বশেষ ম্যাচে ১২০-এর (১১৯) মতো করেছি।’

সিরিজে ২-০ তে পিছিয়ে থাকলেও দল তেমন চাপে নেই বলে জানিয়েছেন নাসিরউদ্দিন ফারুক, ‘মাঠের ভেতরে ইতিবাচক ব্যাপারই বেশি। শেষ ম্যাচের চেয়ে গত ম্যাচে একটু হলেও উন্নতি হয়েছে। সেটি বজায় রাখতে হবে।’

ভারতের বিপক্ষে চলতি সিরিজটা বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশের মেয়েদের প্রস্তুতির সুযোগ। ব্যাটিং কোচ সেটি মনে করিয়ে দিয়ে বললেন, ‘আমাদের জন্য বিশ্বকাপের আগে এটা একটা সুযোগ। এই সিরিজে আমরা বিশ্বকাপের প্রস্তুতি নিচ্ছি। সামনে এশিয়া কাপ এবং অন্য সিরিজও আছে। তবে বিশ্বকাপের দিকেই আমাদের মনোযোগ বেশি।’

সূত্র: প্রথম আলো

সর্বশেষ: